বিয়ে ফুটবলের রাজপুত্রর। পাত্রী ছোটবেলার বান্ধবী অ্যান্টোনেল্লা রোকাজ্জো। আগামী ৩০ জুন।  এই বিয়ে ঘিরে সাজ সাজ রব আর্জেন্টিনার রোসারিওতে। এটা লিওনেল মেসির শহর। এলএম টেনের বিয়েই লাতিন আমেরিকায় কয়েক দশকের সবচেয়ে জমকালো অনুষ্ঠান হতে চলেছে বলেই মনে করা হচ্ছে। বিয়ের পিঁড়িতে বসার আগেই এই জুটির দুটি পুত্র সন্তান রয়েছে। থিয়াগো মেসি ও মাতেও মেসি।

ফুটবলের মহাতারকার বিয়েতে যে রোসারিওতে নক্ষত্র সমাবেশ হতে চলেছে তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না। বার্সেলোনার একঝাঁক সহ খেলোয়াড় তো থাকছেই। বিয়েতে হাজির থাকতে পারেন বার্সার স্পেনের বিশ্বকাপজয়ী  ফুটবলার  জেরার্ড পিকের স্ত্রী তথা পপ তারকা শাকিরাও। কলম্বিয়ার পপ তারকা মেসির বিয়েতে আসতে পারেন বলে নিজেই জানিয়েছেন। এ ব্যাপারে রোকাজ্জোর সঙ্গে তাঁর ঝগড়ার কারণে তিনি আসবেন না বলে যে গুজব রটেছে, তা খারিজ করে দিয়েছেন শাকিরা।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী, লুইস সুয়ারেজ, নেইমার, ফাব্রেগাস ও জাভি হার্নান্ডেজের মতো মেসির ক্লাব বার্সার বর্তমান ও প্রাক্তন অনেক ফুটবলারই আসতে পারেন।

আর্জেন্টিনা স্ট্রাইকারের ম্যানেজার জানিয়েছেন, আগামী ৩০ জুন মেসির ৩০ তম জন্মদিনেই বিয়ে হবে রোসারিওতে।

অতিথিদের তালিকা, অনুষ্ঠান নিয়ে কোনও কিছুই সুনির্দিষ্টভাবে জানানো হয়নি। এ বিষয়ে যা শোনা যাচ্ছে, তা জল্পনামাত্র। কোনও কোনও সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, অতিথির সংখ্যা ৬০০ ছাড়াতে পারে।  আবার কোনও কোনও সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, বার্সার ২১ জন ফুটবলার সমেত সংখ্যাটা ২৫০-র মধ্যেই থাকবে।

যাই হোক না কেন, মেসির বিয়ে ঘিরে নিরাপত্তা সংক্রান্ত ব্যবস্থা জোরদার করতে উদ্যোগী হয়েছে প্রশাসন। প্রশাসনিক সূত্রের খবর, শহরে এলে মেসি নিজের মতো ঘোরাফেরা করেন। কিন্তু বিয়ের অনুষ্ঠান ঘিরে কী ধরনের নিরাপত্তার বন্দোবস্ত করা যায়, তা ঠিক করা হচ্ছে।

জানা গেছে, বর মেসি পরবেন স্পেনের ডিজাইনার রোসা ক্লারার তৈরি পোশাক। অতিথিদের জন্য থাকছে ২০ জন হেয়ার ড্রেসার।

বিয়ের উপহার হিসেবে লিও মেসি ফাউন্ডেশনে দান করতে বলা হয়েছে বলে খবর

Share Button