চীনের মোবাইল ব্র্যান্ড অপ্পো, শাওমি ও ভিভো পরিবেশের জন্য সবচেয়ে বেশি ক্ষতিকর স্মার্টফোন। নেদারল্যান্ডসভিত্তিক পরিবেশ নিয়ে কাজ করা সংস্থা গ্রিন পিসের এক প্রতিবেদনে উঠে এসেছে।
গ্রিনপিস তিনটি বিষয়কে সামনে রেখে পরিবেশ বান্ধব ১৭টি বৈশ্বিক স্মার্টফোন কোম্পানির তালিকা করে। তারা যেসব বিষয় সামনে রেখে তালিকা করেছে সেগুলো হচ্ছে, বিদ্যুৎ ব্যবহার কমানোর মাধ্যমে গ্রিনহাউজ গ্যাস নিঃসরণ কমানো, নির্মাণে টেকসই উপাদান ব্যবহার এবং ক্ষতিকর রাসায়নিক ব্যবহারের মাত্রা। এই তালিকায় চীনের অ্যাপল বলে খ্যাত শাওমি, তারপর অপ্পো ও ভিভো সবার নিচে রয়েছে। গ্রেডিং পদ্ধতিতে করা এই রিপোর্টে আরেক চীনা ব্র্যান্ড হুয়াওয়ে রয়েছে এই তালিকার নিচের দিকে।
পরিবেশ বান্ধব ফোনের তালিকায় সবার উপরে আছে নেদারল্যান্ডস ভিত্তিক ফেয়ার ফোন, ফোনটি পেয়েছে বি গ্রেড। দ্বিতীয় স্থানে থাকা অ্যাপল পেয়েছে বি মাইনাস। নবায়নযোগ্য জ্বালানির ব্যবহার ও পরিচালনায় স্বচ্ছতার জন্য এই দুই প্রতিষ্ঠান শীর্ষে রয়েছে। এই পরীক্ষায় ফেল বা এফ গ্রেড পেয়েছে চীনা কোম্পানি অপ্পো, ভিভো, শাওমি। ‘ফেল’ করা পরীক্ষায় চীনা কোম্পানিগুলোর সঙ্গেই রয়েছে মার্কিন প্রতিষ্ঠান অ্যামাজন। এছাড়া অন্য বড় প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে মাইক্রোসফট সি মাইনাস, এলজি ডি প্লাস, গুগল ডি প্লাস, হুয়াওয়ে ডি এবং স্যামসাং ডি মাইনাস স্কোর করেছে।
গ্রিন পিসের প্রতিবেদনে বলা হয়, স্যামসাং নবায়নযোগ্য জ্বালানির ব্যবহারের দিক দিয়ে পিছিয়ে আছে। আর শাওমি, অপ্পো, ভিভো ও হুয়াওয়ের মত বিশ্বখ্যাত ব্র্যান্ডগুলো বিশ্বের স্মার্টফোন বাজারের চার ভাগের একভাগ দখল করলেও গ্রিনহাউজ গ্যাস নিঃসরণের প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়ন থেকে সরে গেছে। মার্কিন কোম্পানি অ্যামাজনকে সবচেয়ে অস্বচ্ছ প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে অন্যতম অভিহিত করা হয়।
Share Button