রংপুর প্রতিনিধি॥
ফেস বুকে অবমাননাকর ষ্টাটাস দেবার অভিযোগে গ্রেফতার হওয়া টিটু রায়কে দু দফা ৮ দিনের রিমান্ড শেষে মঙ্গলবার দুপুরে রংপুর গোয়েন্দা পুলিশ (উত্তর) কঠোর গোপনীয়তা চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে নিয়ে আসে।
পরে বিকেলে ডিবি পুলিশের কঠোর পাহারায় টিটু রায়কে আদালত থেকে বের করে একটি প্রিজন ভানে রংপুর কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়। তবে ডিবি পুলিশের কোন কর্মকর্তাই এ ব্যাপারে কোন কথা বলতে রাজি হননি। নাম প্রকাশ না করার শর্তে ডিবি পুলিশের একজন কর্মকর্তা জানান, টিটু রায় রংপুরের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আরিফুল ইসলামের আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তি মুলক জবানবন্দি প্রদান করেছেন। পরে জবানবন্দি গ্রহণ শেষে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।
এদিকে, টিটু রায়ের পক্ষে হিন্দু বৌদ্ধ খ্রষ্টিান ঐক্য পরিষদ, পুজা উদযাপন পরিষদ, ঘাতক দালাল নির্মুল কমিটি, ব্লাষ্টসহ বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষে ৭ সদস্যের আইনজিবী প্যানেলের সদস্যরা অভিযোগ করেছেন, তারা সকাল থেকে টিটু রায়ের পক্ষে জামিনের আবেদনসহ তার পক্ষে মামলা পরিচালনা করার জন্য ওকালত নামায় স্বাক্ষর নেয়ার লক্ষ্যে অপেক্ষা করেও টিটু রায়ের সাক্ষাত পাননি। আসামী টিটু রায়ের আইনজীবী নরেশ চন্দ্র সরকার ও ইন্দ্রজিত রায় বলেন, “টিটুকে কখন আদালতে নিয়ে আসা হয়েছে তাও জানিনা। পরে দেখলাম টিটু রায়কে পুলিশ আদালত চত্বর থেকে বের করে প্রিজন ভ্যানে নিয়ে গেল। আমরা টিটু রায়ের পক্ষে আদালতে কথা বলারও সুযোগ পেলাম না। এত গোপনীয়তা কেন আমরা বুঝতে পারলামনা বলে তারা অভিযোগ করেন।

Share Button