[আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য, ১৪ দলের সমন্বয়ক ও মুখপাত্র আমির হোসেন আমু। ফাইল ছবি]

আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য, কেন্দ্রীয় ১৪ দলের সমন্বয়ক ও মুখপাত্র আমির হোসেন আমু এমপি বলেছেন, বঙ্গবন্ধু, বাঙালি ও বাংলাদেশ এক অবিচ্ছেদ্য শব্দ।বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যে আঘাত মানে বাঙালির হৃদপিন্ডে আঘাত, বাংলাদেশের ওপর আঘাত। এ আঘাত কোনো অবস্থায় মেনে নেয়া যায় না। এটা ক্ষমার অযোগ্য অপরাধ।

তিনি এক বিবৃতিতে কুষ্টিয়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নির্মাণাধীন ভাস্কর্য ভাঙচুরের ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে এর তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন।

বিবৃতিতে আমির হোসেন আমু বলেন, যারা বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙচুর করেছে, তারা এদেশের স্বাধীনতা, মুক্তিযুদ্ধ ও সার্বভৌমত্ব বিশ্বাস করে না। ওরা পাকিস্তানের প্রেতাত্মা। তারা বাংলাদেশের সংবিধানেও বিশ্বাসী নয়। এইসব স্বাধীনতা বিরোধীদের সংবিধান অমান্য করার অপরাধে কঠিন শাস্তি হওয়া উচিত।বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য যারা ভাঙচুর করেছে শুধু তাদেরকেই নয়, যারা দেশকে অস্থিতিশীল করে পাকিস্তানের এজেন্ডা বাস্তবায়নে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বার বার আঘাত হানতে চায় সেইসব ইন্ধনদাতা ও তাদের পৃষ্ঠপোষকদেরও আইনের আওতায় আনার দাবি জানান আমির হোসেন আমু।

বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়নের লক্ষ্যে স্বাধীনতা বিরোধী অপশক্তিদের যে কোনো ষড়যন্ত্র মোকাবেলায় দেশবাসীকে সতর্ক ও ১৪ দলের নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ থাকার আহ্বান জানান আওয়ামী লীগের এই প্রবীণনেতা।

Share Button