কালিয়াকৈর (গাজীপুর) প্রতিনিধি:
গাজীপুরের কালিয়াকৈরে ভাড়ায় চালিত মোটর সাইকেল ছিনতাইয়ের চেষ্টার অভিযোগে ভূয়া সেনা সার্জেন্টকে পুুুলিশে সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী। এ ঘটনায় মঙ্গলবার সকালে কালিয়াকৈর থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়।
গ্রেপ্তারকৃত হলেন, রংপুরের তারাগঞ্জ থানার গোয়ালপাড়া এলাকার মৃত আজিজার রহমানের ছেলে রবিউল ইসলাম (৪০)।
এলাকাবাসী ও পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, বগুড়ার শিবগঞ্জ থানার সাংমাদাগাছী এলাকার আবুল হোসেনের ছেলে মিজানুর রহমান জীবিকার খোজে দীর্ঘদিন আগে গাজীপুরের কালিয়াকৈরে আসেন। পরে উপজেলার কালামপুর এলাকার  ইকবাল হোসেনের বাড়ীতে বাসা ভাড়া থেকে বিভিন্ন এলাকায় ভাড়ায় চালিত মোটরসাইকেল চালিয়ে আসছেন। গত সোমবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে তিনি ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের চন্দ্রা এলাকায় তার মোটরসাইকেল নিয়ে যাত্রীর জন্য অপেক্ষা করছিলেন।  এ সময় রবিউল ইসলাম নামে ওই ব্যক্তি হাতে একটি ওয়ারলেস সেটসহ সেখানে হাজির হন। তিনি নিজেকে
সাজেষ্ট পরিচয় দিয়ে  তার মােটরসাইকেলটি ভাড়া নেয়। পরে তাকে মোটরসাইকেলে উঠিয়ে তার কথা মতো উপজেলার রতনপুর, সফিপুর, কালামপুর
এলাকায় ঘােরাঘােরি করে। এক পর্যায়ে ওই ব্যক্তি  কালামপুর দক্ষিণপাড়া ইয়াছিন মাঠের কাছে গিয়ে মােটরসাইকেল থামাতে বলেন। এসময় তিনি ওই ভূয়া সার্জেন্ট তার  মােটরসাইকেলটি চোরাই মােটর সাইকেল বলে দাবী করে। যদি তার চাহিদা মতো টাকা না দিলে মােটরসাইকেলটি নিয়ে যাবে। মােটরসাইকেলেরর যাবতীয় কাগজপত্র দেখানাের পরেও জোর পূর্বক মােটরসাইকেলটি নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এসময় বাধা দিলে ওই ভুয়া সার্জেন্ট ক্ষিপ্ত হন। এসময় আশেপাশের লােকজন
এগিয়ে গিয়ে জিজ্ঞাসা করিলেও তিনি নিজেকে সার্জেন্ট পরিচয় দেয় এবং মােটরসাইকেলটি চোরাই মােটরসাইকেল বলে দাবী করে। তারপরও
মােটরসাইকেলটি জোর পূর্বক নিয়ে যাওয়ার চেস্টা করলে তাকে আটক করে পুলিশে খবর দেয় এলাকাবাসী। খবর পেয়ে কালিয়াকৈর থানার টহল পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে। তার পরিচয় জানতে চাইলে পুলিশের কাছেও নিজেকে সার্জেন্ট পরিচয় দেয়। এসময় পুলিশ তার আইডি কার্ড দেখতে চাইলেও তিনি অনিহা প্রকাশ করে। এতে সন্দেহ হলে পুলিশ তাকে আটক করে থানায় নিয়ে গেলে তিনি ভুয়া সার্জেন্ট। তিনি তার মােটরসাইকেলটি নিয়ে যাওয়ার চেস্টা করেছিল। এ সময় দেহ তল্লাশী করে তার কাছ থেকে কালাে রংয়ের একটি ওয়াকিটকি, বাংলাদেশ সেনাবাহিনী লেখা
এবং লণ্ডসহ তার ছবি সম্বলিত ৪টি আইডি কার্ড  জব্দ তালিকা মুলে জব্দ করা হয়। এ ঘটনায় রবিউল ইসলাম বাদী হয়ে মঙ্গলবার সকালে কালিয়াকৈর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।
কালিয়াকৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনোয়ার হোসেন চৌধুরী জানান, একজন ভূয়া সার্জেন্ট গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।
Share Button