[ছবি : সংগৃহীত]

জাতীয় সংসদ থেকে পদত্যাগ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন পাকিস্তানের ১১ দলের সমন্বয়ে গঠিত বিরোধী জোটের সদস্যরা। পাকিস্তান ডেমোক্রেটিক মুভমেন্ট নামের এ জোট গঠিত হয়েছিল গত সেপ্টেম্বরে।

১১ দলীয় জোটে রয়েছে সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফের মুসলিম লীগ এবং পাকিস্তান পিপলস পার্টি বা পিপিপি’র মতো প্রভাবশালী বৃহৎ রাজনৈতিক দল। জোটের নেতারা বলছেন, ইমরান খান ২০১৮ সালের নির্বাচনে কারচুপির মাধ্যমে ক্ষমতায় এসেছেন।

পাকিস্তানের জাতীয় সংসদে ক্ষমতাসীন তেহরিকে ইনসাফ দলের সামান্য ব্যবধানের সংখ্যাগরিষ্ঠতা রয়েছে। দলটির নেতৃত্বে রয়েছেন প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। যদি ১১ দলীয় বিরোধী জোট সংসদ থেকে পদত্যাগ করে তাহলে পাকিস্তান বড় রকমের রাজনৈতিক সংকটে পড়বে।

এদিকে ইমরান খান বলছেন, বড় দুই রাজনৈতিক দল তাকে ক্ষমতাচ্যুত করতে চায় কারণ তাদের দুর্নীতির ব্যাপারে তিনি কোনো ছাড় দিচ্ছেন না। ইমরান খানের নেতৃত্বাধীন পিটিআই দল ২০১৮ সালের জুলাই মাসে অনুষ্ঠিত নির্বাচনের মাধ্যমে ক্ষমতায় আসে এবং এটিই এই দলের প্রথমবারের মতো ক্ষমতায় বসা।

Share Button