চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি
চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোল পৌরসভার ভোট গ্রহণ চলছে। সকাল ৮ টায় ১০টি কেন্দ্রে একযোগে ভোট গ্রহন শুরু হয়। প্রথমবারের মত ইভিএম’র মাধ্যমে এই ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হচ্ছে।
কয়েকটি কেন্দ্র ঘুরে দেখা গেছে, ভোটারদের উপস্থিতিও ভালো। সকাল ১১টা পর্যন্ত কোন ভোট কেন্দ্র থেকেই কোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি।
ভোটাররা বলছেন যে প্রথমবারের মত ইভিএমে ভোট গ্রহণ হলেও ভোট চলাকালীন কোন কারিগরি সমস্যা পাওয়া যায়নি এবং দ্রুততম সময়ে তারা ভোট দিতে পেরেছেন।’
জেলা নির্বাচন অফিসার ও রির্টানিং কর্মকর্তা মোতাওয়াাক্কিল রহমান জানান,‘ প্রথম তিন ঘন্টায় (১১টা পর্যন্ত) ৩০ শতাংশ ভোট গ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে। তিনি আরও জানান,‘ অবাধ, নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠ নির্বাচনে সব ধরনের প্রস্তুতি রয়েছে নির্বাচন অফিসের। ভোটকেন্দ্রে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর পাশাপাশি নির্বাচনী এলাকায় সার্বিক নিরাপত্তায় পুলিশ, র‌্যাব ও বিজিবি’র বাড়তি সদস্য মাঠে রয়েছে। আইন-শৃঙ্খলা স্বাভাবিক রাখতে নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেটও মাঠে রয়েছেন। আশা করছি কোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা ছাড়াই সুষ্ঠভাবে ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হবে।
এদিকে, নৌকার প্রার্থী আব্দুর রশিদ খান ঝালু ও ধানের শীষের প্রার্থী মাসউদা আফরোজ হক সূচি জানান,‘সকাল থেকেই ভোটাররা উৎসব মুখর পরিবেশে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করছেন এবং শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট গ্রহণ চলছে। তবে জয়ের ব্যাপারে শতভাগ আশাবাদী দুই প্রার্থীই।’
নাচোল পৌরসভার মোট ভোটার ১৫ হাজার ৮ জন। নির্বাচনে মেয়র পদে ৪ জন, সাধারণ কাউন্সিলর পদে ৩৮ এবং সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর পদে লড়ছেন ৮ জন।
এদিকে, জেলা প্রশাসক মঞ্জুরুল হাফিজ জানান,‘ যতগুলো কেন্দ্রে গিয়েছি প্রত্যেকটি কেন্দ্রেই উৎসব মুখর পরিবেশে ভোট গ্রহণ চলছে। প্রার্থী এবং সাধারণ ভোটারদের সাথে কথা বলেছি তারা প্রত্যেকেই সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। প্রথমবার ইভিএমে ভোট হওয়ায় টেকনিক্যাল প্রবলেমের কারনে দু’একটি কেন্দ্রে কিছুটা স্লো হলেও; আশা করছি দুপুর হতে হতে কেন্দ্রানুযায়ী সব ভোটই কাস্ট হয়ে যাবে। তিনি আরও জানান,‘ নাচোল পৌরসভায় দূর্ঘটনা ঘটার কোন সুযোগ নেই। এক্ষেত্রে প্রশাসন জিরো টলারেন্সে রয়েছে। কেন্দ্রে এবং মাঠ পর্যায়ে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।’