চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি॥
চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার ভোলাহাটে ইয়াবা স¤্রাট সরকরী দু’কর্মচারীসহ তিন জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ পরির্দশক(তদন্ত) কবির হোসেনের নির্দেশে শুক্রবার রাত পৌণে ১টার দিকে এসআই আব্দুল মান্নান, এএসআই জাহাংগীরসহ সঙ্গীয় পুলিশ সদস্যর দল ভোলাহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ভিতরে এ্যাম্বুলেন্স চালকের কোয়াটারে অভিযান চালিয়ে সরকারী কর্মচারী এ্যাম্বুলেন্স চালক জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার লক্ষীপুর গ্রামের জোনাব আলীর ছেলে শরিফুল ইসলাম (৩৪), ভোলাহাট উপজেলা প্রশাসনের নৈশ্য প্রহরী চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা সদরের জান্নাতপাড়া গ্রামের মনিরুল ইসলামের ছেলে সোহেল রানা (২৬) ও তাদের ইয়াবা বিক্রয়ের মাধ্যম ভোলাহাট উপজেলার তেলীপাড়া গ্রামের ইলিয়াসের ছেলে শফিকুল ইসলাম(২৩)কে ইয়াবা বিক্রয়ের সময় গ্রেপ্তার করে। এ সময় তাদের কাছে থাকা ৬ পিস ইয়াবা ও ইয়াবা বিক্রয়ের ২০ হাজার ৯শত ৯০টাকা জব্দ করেন। পুলিশি অভিযানের বিষয়টি টের পেয়ে অন্য ইয়াবা ক্রেতারা পালিয়ে যায়। উল্লেখিত ব্যক্তিদের মধ্যে এ্যাম্বুলেন্স চালক শরিফুল ইসলাম ফেনসিডিল নিয়ে পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হয়েছিল। স্থাণীয়রা অভিযোগ করে বলেন, এ্যাম্বুলেন্স চালক ও নৈশ্য প্রহরী সরকারী কর্মচারী হয়ে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে বসবাস করে দীর্ঘ দিন ধরে মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত থাকার বিষয়টি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কর্তৃপক্ষ জানলেও কোন ব্যবস্থা না নেয়ায় সে আরো মাদক ব্যবসায় বেপরুয়া হয়ে উঠে ছিলো। এতে উপজেলার যুব সমাজ ধংস হতে বসেছে। সে মেডিকেল মোড়ের বেশ কিছু পয়েন্টের দোকানে ইয়াবা পৌঁছে দিয়ে নিয়মিত নিয়মিত ব্যবসা করে আস ছিল। তারা গ্রেপ্তার হওয়ায় এলাকাবাসি শান্তির নিঃশ্বাস ফেলেছেন। এ ব্যাপারে ভোলাহাট থানার দায়িত্বর অফিসার ইনচার্জ পুলিশ পরিদর্শক কবির হোসেন জানান, তাদের বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা হয়েছে এবং আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হবে বলে বিকেল ৩টার এ রির্পোট লেখার সময় তিনি বলেন।

Share Button