• বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ০৫:৪৫ অপরাহ্ন

বিপর্যস্ত রোহিঙ্গারা নানান রোগব্যাধিতে আক্রান্ত

আল ইসলাম কায়েদ
আপডেটঃ : বুধবার, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৭

মিয়ানমার সেনাবাহিনীর হাতে বর্বর নির্যাতন আর গণহত্যার মুখে বাংলাদেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গারা রোগব্যাধিতে আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হওয়ার পাশাপাশি শিশুরা চর্মরোগ ও নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হচ্ছে।

গত ২৫ আগস্ট থেকে শুরু হওয়া মিয়ানমারে অব্যাহত সহিংসতায় বাংলাদেশে চার লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা শরণার্থী প্রবেশ করেছে বলে দাবি জাতিসংঘের। এখনো সীমান্তে আসছে অনেক রোহিঙ্গা। টেকনাফ ও উখিয়ার রাস্তাঘাটসহ বিভিন্ন এলাকায় তারা অবস্থান করছেন। খবর বিবিসি বাংলার।

রোহিঙ্গা শরণার্থীদের স্বাস্থ্যসেবার বিষয়ে জানতে চাইলে সহকারী সিভিল সার্জন ডা. মহিউদ্দিন মোহাম্মদ আলমগীর বলেন, শুরুতে আমাদের প্রস্তুতি কম থাকলেও পরে যথাযথ ব্যবস্থা নিয়েছি।

তিনি বলেন, ব্যাপক শরণার্থী আসার পরপরই আমরা একটা পর্যালোচনা করি এবং কিছু প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা নিতে শুরু করি।

তিনি বলেন, বিশেষ করে পর্যাপ্ত বিশুদ্ধ পানি, স্বাস্থ্যসম্মত স্যানেটারির মতো ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। এ জন্য উখিয়া ও টেকনাফে কিছু মেডিকেল টিমও গঠন করে দেয়া হয়েছে আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর সমন্বয়ে।

ডা. মহিউদ্দিন বলেন, ‘সিভিল সার্জন অফিসের তথ্য অনুযায়ী, এ পর্যন্ত প্রায় ৫ লাখ পানি বিশুদ্ধকরণ ট্যাবলেট বিতরণ করা হয়েছে এবং এর প্রতিটি দিয়ে ২০ লিটার পানি বিশুদ্ধ করা সম্ভব।’

তিনি বলেন, ডায়রিয়া প্রতিরোধে ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। ১ লাখ ১৩ হাজার শিশুকে ভ্যাকসিন দেয়ার লক্ষ্য ঠিক করা হয়েছে। পর্যাপ্ত ওষুধ সরকারের তরফ থেকে এসেছে।

ডা. মহিউদ্দিন জানান, মূলত ডায়রিয়া, চর্মরোগ, নিউমোনিয়া আর চোখের প্রদাহতে ভুগছেন অনেক রোহিঙ্গা। সঙ্গে গুলিতে আহতরাও রয়েছেন।

এ ছাড়া প্রায় এক হাজার প্রসূতি রোহিঙ্গা নারী বাংলাদেশে এসে স্বাস্থ্যসেবা পেয়েছে বলেও জানান এ চিকিৎসক।

কুতুপালংয়ে স্যাটেলাইট ক্লিনিকে অনেক রোহিঙ্গাকে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। এ মুহূর্তে সদর হাসপাতালেও ৭শর মতো রোহিঙ্গা রোগী ভর্তি আছেন বলে জানান তিনি।

Share Button


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো নিউজ

You cannot copy content of this page

You cannot copy content of this page