• শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ০৯:৪৯ অপরাহ্ন

কিরকুকের পুরো নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে ইরাকি বাহিনী

আপডেটঃ : রবিবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৭

কুর্দির পেশমেরগা বাহিনীর সঙ্গে ব্যাপক সংঘর্ষের পর গোটা কিরকুকের নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে বলে দাবি করেছে ইরাকি বাহিনী। সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে, এরবিলের কাছে আলতুন কুপরি শহর তারা দখল করে নিয়েছে।

ইরাকি সেনাবাহিনী জানায়, আলতুন কুপরি দখল করতে তাদেরকে সেখানে সাহায্য করেছে শিয়া প্যারা মিলিটারি বাহিনী। গতকাল কুর্দিদের সঙ্গে তিনঘণ্টা যুদ্ধের পর তারা ওই শহরটি দখল করতে সক্ষম হয়। পেশমেরগা বাহিনী ইরাকি বাহিনীর বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তোলার চেষ্টা করলেও শেষ মুহূর্তে তারা ব্যর্থ হয়। অবশেষে কুর্দিদের পরাজিত করে ইরাক কিরকুক প্রদেশের সব এলাকা নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নেয়। আলতুন কুপরি শহরটি কিরকুক থেকে ৪০ কিলোমিটার উত্তর পশ্চিমে অবস্থিত। ইরাকের প্রধানমন্ত্রী হায়দার আল আবাদি নির্দেশ দিয়েছিলেন, এরবিল শহরের খুব বেশি যেন ভিতরে না ঢোকা হয়। কেননা এর ফলে সাধারণ মানুষের ক্ষতি হতে পারে।

উল্লেখ্য, কুর্দিদের বিরুদ্ধে ইরাকি বাহিনীর অভিযানের পর থেকে এ পর্যন্ত ১ লাখেরও বেশি মানুষ সেখান থেকে প্রাণভয়ে পালিয়ে গেছে। আল জাজিরার সংবাদদাতা স্টেফেনি ডেকার কিরকুক থেকে বলেন, ইরাকি বাহিনী আলতুন কুপরিতে অভিযান চালানো শুরু করলে সেখানে পুশমেরগা বাহিনী প্রতিরোধ গড়ে তোলার চেষ্টা করে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত তা আর টিকে থাকেনি। অবশেষে তাদের পরাজয় বরণ করতে হয়। পেশমেরগা সৈন্য ইব্রাহিম মির্জা বলেন, কুর্দিদের সঙ্গে ইরাকি বাহিনীর সংঘর্ষে অনেক প্রাণহানিও ঘটেছে। তিনি বলেন, আমরা মারা গেলেও আমরা শহীদ হয়েছি। তিনি আরো বলেন, আমরা সত্যিই তাদের হামলার শিকার হয়েছি। আমরা তাদের প্রতিহত করতে পারিনি। তবে আমরা শেষ পর্যন্ত লড়ে গেছি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো নিউজ