পেরুর ক্ষমাপ্রাপ্ত সাবেক প্রেসিডেন্ট আলবার্তো ফুজিমোরিকে মঙ্গলবার হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। হৃদরোগের চিকিৎসা দেয়ার পর তাকে হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেয়া হলো। খবর বার্তা সংস্থা এএফপি’র।
মানবাধিকার লঙ্ঘনের দায়ে তাকে ২৫ বছরের সাজা দেয়া হয়েছিল। সম্প্রতি ক্ষমা পাওয়ার আগ পর্যন্ত তিনি ওই সাজা ভোগ করছিলেন। পেরুর সাবেক এ প্রেসিডেন্টের চিকিৎসক আলেজান্দ্রো আগুইনাগা বলেন, গত বছরের শেষের দিকে ৭৯ বছর বয়সী ফুজিমোরিকে হাসপাতালে ভর্তি করে বিভিন্ন রোগের চিকিৎসা দেয়া হয়। তিনি হাসপাতালের পর্যবেক্ষণে রয়েছেন।
আগুইনাগা আরো জানান, ফুজিমুরির শরীরে হল্টার মনিটর মেশিন লাগানো হয়েছে যাতে ২৪ ঘণ্টায় তার হৃৎপিণ্ডে যা কিছু ঘটছে তা রেকর্ড হচ্ছে। গত ডিসেম্বরে পেরুর সাবেক এ নেতাকে ক্ষমা করে দেয়া প্রশ্নে তার দুই সন্তান কেইকো ও কেনজির মধ্যে সম্পর্কের অবনতি ঘটার প্রেক্ষাপটে তাকে হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেয়া হলো। কেইকো ও কেনজি রাজনীতিতে সক্রিয়। এএফপি।
Share Button