• সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ০৬:৪৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
নিউইয়র্কে সেইভ দ্য পিপল’র উদ্যোগে হালাল খাদ্য সামগ্রী বিতরণ সেন্ট মার্টিনের নিরাপত্তা নিয়ে স্বার্থান্নেষী মহল গুজব ছড়াছে : আইএসপিআর মুসলিম বিশ্ব নিরানন্দে ঈদ উদযাপন করছে : এরদোয়ান ছেলে জয়ের নামে ছাগল কোরবানি দেবেন অপু, বুবলী দিচ্ছেন গরু ধারণক্ষমতার অতিরিক্ত যাত্রী নিয়ে যাওয়ার পথে লঞ্চ আটকে দিলেন ম্যাজিষ্ট্রেট সোনাতলা পৌরসভায় ভিজিএফের এর চাল বিতরণ শেষ লগ্নে জমে উঠেছে কলকাতার পশুর হাট, কদর বেড়েছে দুম্বা ও খাসির প্রধানমন্ত্রীর প্রচেষ্টায় সেনাবাহিনী বিশ্ব-দরবারে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে : সেনা প্রধান বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ বেড়ে ১৯ বিলিয়ন ডলার ছাড়িয়েছে। সরকার বিদেশের ওপর নির্ভর করে ক্ষমতায় আছে : মির্জা ফখরুল

যুক্তরাষ্ট্র ও মেক্সিকোর মধ্যে নিরাপত্তা সহযোগিতা জোরদার

আপডেটঃ : শনিবার, ৩ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসন শুক্রবার জোর দিয়ে বলেছেন, মাদক চোরাচালান বিরোধী লড়াইয়ে যুক্তরাষ্ট্র ও মেক্সিকো সহযোগিতা জোরদার করেছে। ডোনাল্ড ট্রাম্পের মেক্সিকো বিরোধী বক্তব্যের প্রভাব ঝেড়ে ফেলে তারা এ সহযোগিতা জোরদার করে। খবর এএফপি’র।
মেক্সিকান অভিবাসন, নর্থ আমেরিকান ফ্রি ট্রেড এগ্রিমেন্ট এবং সীমান্ত দেয়াল নির্মাণ করা বিষয়ে ট্রাম্পের কঠোর অবস্থানের ব্যাপারে তার আক্রমণাত্মক বক্তব্যের কারণে যুক্তরাষ্ট্র ও মেক্সিকোর মধ্যে সম্পর্কের অবনতি ঘটে। সমালোচকরা বলছেন, তিনি মিত্র ও প্রতিবেশী দেশের সঙ্গে বিপন্ন মার্কিন সম্পর্কের ঝুঁকি নিচ্ছেন। নিরাপত্তাসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে এ প্রতিবেশী দেশের সহযোগিতা প্রয়োজন ওয়াশিংটনের।
টিলারসন এই প্রথমবারের মতো তার গুরুত্বপূর্ণ ল্যাটিন আমেরিকা সফর শুরু করেছেন। এ সফরে তিনি ও মেক্সিকোর পররাষ্ট্রমন্ত্রী দু’দেশের মধ্যে থাকা যেকোনো উত্তেজনা প্রশমনের অঙ্গীকার ব্যক্ত করেন এবং তারা আন্তর্জাতিক মাদক বাণিজ্যের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের ওপর গুরুত্ব দেন।
মেক্সিকো সিটিতে দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী লুইস ভিদাগারে ও কানাডার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ক্রিস্টিয়া ফ্রিল্যান্ডের সঙ্গে বৈঠকের পর টিলারসন বলেন, ‘কোকেন, হিরোইনসহ সব ধরণের মাদকের ভয়ংকর প্রভাব রোধে আমরা ভিন্ন আঙ্গিকের সহযোগিতার ক্ষেত্র তৈরি করছি।’ তিনি বলেন, ‘এই মাদক আমেরিকা, মেক্সিকো ও কানাডার নাগরিকদের ওপর মারাত্মক নেতিবাচক প্রভাব ফেলছে।’
গত অক্টোবর মাসে ট্রাম্প ঘোষণা দেন যে, আফিম যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় জনস্বাস্থ্যের জন্য একটি বড় হুমকি হিসেবে দেখা দিয়েছে। এক্ষেত্রে পরস্পরকে দোষারোপ না করে সহযোগিতার একটি দৃষ্টান্ত স্থাপন করতে হবে। পরে টিলারসন মেক্সিকোর প্রেসিডেন্ট এনরিক পেনা নিয়েতোর সঙ্গে সাক্ষাত করে বলেছেন, তারা দু’দেশের মধ্যে থাকা সম্পর্ক জোরদারের ব্যাপারে সম্মত হয়েছেন। এএফপি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো নিউজ