• সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ০৭:৪৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
নিউইয়র্কে সেইভ দ্য পিপল’র উদ্যোগে হালাল খাদ্য সামগ্রী বিতরণ সেন্ট মার্টিনের নিরাপত্তা নিয়ে স্বার্থান্নেষী মহল গুজব ছড়াছে : আইএসপিআর মুসলিম বিশ্ব নিরানন্দে ঈদ উদযাপন করছে : এরদোয়ান ছেলে জয়ের নামে ছাগল কোরবানি দেবেন অপু, বুবলী দিচ্ছেন গরু ধারণক্ষমতার অতিরিক্ত যাত্রী নিয়ে যাওয়ার পথে লঞ্চ আটকে দিলেন ম্যাজিষ্ট্রেট সোনাতলা পৌরসভায় ভিজিএফের এর চাল বিতরণ শেষ লগ্নে জমে উঠেছে কলকাতার পশুর হাট, কদর বেড়েছে দুম্বা ও খাসির প্রধানমন্ত্রীর প্রচেষ্টায় সেনাবাহিনী বিশ্ব-দরবারে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে : সেনা প্রধান বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ বেড়ে ১৯ বিলিয়ন ডলার ছাড়িয়েছে। সরকার বিদেশের ওপর নির্ভর করে ক্ষমতায় আছে : মির্জা ফখরুল

টাকা পরিশোধ না করায় ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের ওয়েবসাইট বন্ধ!

আপডেটঃ : সোমবার, ৫ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮

বিশ্বের সবচেয়ে সম্পদশালী ক্রিকেট বোর্ড হল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআই। কিন্তু টাকার অভাবে তারাই কিনা নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে তাদের ওয়েবসাইটের ডোমেইন নবায়ন করতে পারেনি।
রবিবার বেশ কিছু সময়ের জন্য বন্ধ থাকে বিসিসিআইয়ের ওয়েবসাইট। তখনটি বিষয়টি বোর্ড কর্তাদের নজরে আসে। অবশ্য কিছুক্ষণ পর আবার ডোমেইনটি ঠিক হয়ে যায়।
জানাযায়, আগের চুক্তি অনুযায়ী ২০০৬ সালের ২ ফেব্রুয়ারি থেকে ২ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ পর্যন্ত ডোমেন ব্যবহার করতে পারত বিসিসিআই। কিন্তু এই সময়ের মধ্য নতুন করে নবায়ন না করায় রোববার দীর্ঘক্ষণ বন্ধ থাকে ওয়েবসাইট। রবিবার দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডে খেলেছে ভারত। খেলা চলাকালীনই ওয়েবসাইট লম্বা সময় বন্ধ থাকে। মুহুর্তের মধ্যই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ নিয়ে সমালোচনা শুরু হয়ে যায়। কোটি কোটি টাকা যাদের, টাকার জন্য তাদেরই ওয়েবসাইট কেন বন্ধ হয়ে গেল তা নিয়ে উঠে নানা প্রশ্ন। বিষয়টি নজরে আসার পর বোর্ডের পক্ষ থেকে অর্থ মিটিয়ে দেয়ার পর খুলে দেয়া হয় ওয়েবসাইট।
এ ঘটনার জন্য বিসিসিআই দোষ দিচ্ছে লোলিত মোদিকে। অর্থ কেলেঙ্কারির অভিযোগে আইপিএল উদ্ভাবক ২০১০ থেকে নিষিদ্ধ থাকলেও বোর্ডে এখনও প্রভাব রয়েছে তার।
বিসিসিআই’র একটি সূত্রে বরাতে টাইমস অব ইন্ডিয়া জানাচ্ছে, বোর্ডের ইন্টারনেট ডোমেনের নিয়ন্ত্রক এখনো লোলিত মোদিই। তিনি ঠিক সময়ের নবায়নের অর্থ দেননি। আর এ কারণেই বন্ধ হয়ে যাওয়ার মত ঘটনা ঘটেছে। যাকে টাইমস অব ইন্ডিয়া বলছে, ‘মোদি বাগ’ বা ‘মোদি জীবাণু’।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো নিউজ